বিচার চেয়ে কাটছে সময় | The Daily Star Bangla
০১:৩৯ অপরাহ্ন, মার্চ ০৬, ২০২১ / সর্বশেষ সংশোধিত: ০১:৪১ অপরাহ্ন, মার্চ ০৬, ২০২১

বিচার চেয়ে কাটছে সময়

২০১৩ সালের ৬ মার্চ বিকেলে অপহরণের দুই দিন পর ৮ মার্চ সকালে পুলিশ উদ্ধার করে তানভীর মুহাম্মদ ত্বকীর মরদেহ। এ ঘটনার আট বছরেও ত্বকী হত্যার বিচার হয়নি।

কেন এখনো ত্বকী হত্যার বিচার হয় না? দ্য ডেইলি স্টার কথা বলেছে ত্বকীর বাবা, তেল-গ্যাস-খনিজ সম্পদ রক্ষা জাতীয় কমিটি নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার আহ্বায়ক ও বিশিষ্ট সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব রফিউর রাব্বির সঙ্গে।

তিনি বলেন, ‘আমাদের দেশে আইন তো স্বাভাবিক গতিতে চলে না। এটা সরকার দ্বারা নিয়ন্ত্রিত। যদি স্বাধীন বিচারব্যবস্থা থাকত, তাহলে এতদিনে বিচার হয়ে যেত। আমাদের সংবিধানের একটা বাধ্যবাধকতা আছে যে, কোনো ঘটনায় মামলা হলে ৬০ দিনের মধ্যে এর অভিযোগপত্র আদালতে দাখিল করতে হবে। এর মধ্যে না পারলে অতিরিক্ত ১৫ দিন সময় বাড়িয়ে এটাকে ৭৫ দিন করা যায়। কিন্তু, যেই অভিযোগপত্র তৈরি থাকা সত্ত্বেও আট বছরেও তা দেওয়া হয় না, এর মাধ্যমে আমরা সরকারের উদ্দেশ্যটা বুঝি। কারণ, ত্বকীর ঘাতক হিসেবে যারা তদন্তকারী সংস্থা র‌্যাব দ্বারা চিহ্নিত হয়েছে, তারা সরকার দলীয় লোকজন। এজন্য বিচারটা বন্ধ করে রেখেছে।’

তদন্তকারীরা আপনাদের কী বলছে?, তিনি বলেন, ‘তদন্তকারী সংস্থার সঙ্গে তো নিয়মিতই যোগাযোগ হয়। কিন্তু, তারা তো কিছু বলবে না। তারা তো সব কথা সরাসরি বলতে পারে না। তাদের একটা বুঝ দিতে হয় যে, তদন্ত শেষ পর্যায়ে, এটা চলছে, আমরা অচিরেই অভিযোগপত্র দেবো। তদন্ত শেষ করে র‌্যাব ২০১৪ সালের ৫ মার্চ সংবাদ সম্মেলন করে জানিয়েছে। তদন্তকারী সংস্থা একটি অভিযোগপত্র সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদেরও সরবরাহ করেছে। ওসমান পরিবারের নেতৃত্বে ১১ জন ত্বকীকে হত্যা করেছে, কেন, কোথায়, কখন হত্যা করেছে, সবকিছু তারা প্রকাশ করেছে এবং বলেছে, অচিরেই তারা সেটি আদালতে পেশ করবে। এরপরেই সংসদে দাঁড়িয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যখন বলেন যে, “আমি ওসমান পরিবারের পাশে আছি”, তারপর থেকে আমরা খোঁজ নিলে তদন্তকারীরা বলে যে, তদন্তকাজ চলছে, শেষ পর্যায়ে।’

‘ত্বকী হত্যার বিচার অবশ্যই হবে’ দৃঢ়তার সঙ্গে বলেন রফিউর রাব্বি। তিনি আরও বলেন, ‘বিভিন্ন সময়ে আমাদের দেশের সরকার বিচারব্যবস্থা, আইন-আদালতকে নিজের নিয়ন্ত্রণে আনতে চেয়েছে। সেই সরকার যতক্ষণ পর্যন্ত ক্ষমতায় থাকে, সেই চেষ্টা করে। কিন্তু, কোনো সরকার তো চিরস্থায়ী না। যখন সরকার পরিবর্তন হয়, এই যে সরকার এসব বিষয় নিয়ন্ত্রণ করতে চাইল, বিচার বন্ধ করে রাখল, অপরাধীদের পৃষ্ঠপোষকতা দিলো, সে কারণে এর সঙ্গে অভিযুক্ত কলাকৌশলীদেরকেও বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হবে। ত্বকী হত্যার বিচার অবশ্যই হবে। যদি এই সরকারের আমলে না হয়, তাহলে পরবর্তীতে হবে। কিন্তু, আমরা চাই এই সময়ে হোক। ত্বকী হত্যার বিচার তো অবশ্যই হবে, যারা বিচার বন্ধ করে রেখেছে, তাদেরকেও বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হবে।’

আরও পড়ুন:

কেন হয় না ত্বকী হত্যার বিচার

Stay updated on the go with The Daily Star Android & iOS News App. Click here to download it for your device.

Grameenphone and Robi:
Type START <space> BR and send SMS it to 2222

Banglalink:
Type START <space> BR and send SMS it to 2225

পাঠকের মন্তব্য

Top