৩০ বছর পর ইংল্যান্ডের চ্যাম্পিয়ন লিভারপুল | The Daily Star Bangla
০৩:০৭ পূর্বাহ্ন, জুন ২৬, ২০২০ / সর্বশেষ সংশোধিত: ০৪:১৫ অপরাহ্ন, জুন ২৬, ২০২০

৩০ বছর পর ইংল্যান্ডের চ্যাম্পিয়ন লিভারপুল

স্পোর্টস ডেস্ক

অবসান হলো দীর্ঘ তিন দশকের অপেক্ষার। ১৯৮৯-৯০ মৌসুমের পর প্রথমবারের মতো ইংল্যান্ডের পেশাদার ফুটবলের সর্বোচ্চ আসরের শিরোপা জিতল লিভারপুল।

বৃহস্পতিবার রাতে পয়েন্ট তালিকার দ্বিতীয় স্থানে থাকা ম্যানচেস্টার সিটি স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে চেলসির কাছে ২-১ গোলে হেরে যাওয়ায় ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ২০১৯-২০ মৌসুমে চ্যাম্পিয়ন হলো ইয়ুর্গেন ক্লপের দল।

এটি লিভারপুলের ১৯তম লিগ শিরোপা। শেষবার যখন তারা চ্যাম্পিয়ন হওয়ার উৎসবে মেতেছিল, তখন প্রিমিয়ার লিগ পরিচিত ছিল ইংলিশ ফার্স্ট ডিভিশন নামে। অর্থাৎ প্রথমবারের মতো প্রিমিয়ার লিগ জেতার স্বাদ পেল দলটি।

সাত ম্যাচ হাতে রেখে শিরোপা ঘরে তোলার কীর্তি গড়ল অলরেডরা। ৩১ ম্যাচে তাদের অর্জন ৮৬ পয়েন্ট। সমান ম্যাচ খেলে ২৩ পয়েন্টে পিছিয়ে পেপ গার্দিওলার ম্যান সিটি। বাকি ম্যাচগুলোর প্রতিটিতে লিভারপুল হারলে এবং সবকটিতে ম্যান সিটি জিতলেও দুই পয়েন্টে এগিয়ে থাকবে ক্লপের শিষ্যরা।

আগের রাতে ঘরের মাঠে ক্রিস্টাল প্যালেসকে উড়িয়ে বিজয়ের মঞ্চ তৈরি করে রেখেছিল লিভারপুল। অপেক্ষা ছিল কেবল দুটি পয়েন্টের। ম্যাচের শেষদিকে ১০ জনের দলে পরিণত হওয়া ম্যান সিটিকে চেলসি হারিয়ে দেওয়ায় সেই প্রতীক্ষার ইতি ঘটল।

৩৬তম মিনিটে পাল্টা আক্রমণ থেকে চেলসিকে এগিয়ে দেন ক্রিস্টিয়ান পুলিসিচ। মাঝমাঠে বেঞ্জামিন মেন্ডি ও ইলকাই গুন্দোগানের ভুল বোঝাবুঝিতে বল পেয়ে যান যুক্তরাষ্ট্রের এই মিডফিল্ডার। এরপর একক দক্ষতায় বল টেনে নিয়ে ডি-বক্সের প্রান্ত থেকে ডান পায়ের নিচু শটে লক্ষ্যভেদ করেন তিনি।

ম্যাচে বল দখলে এগিয়ে থাকা সিটি সমতায় ফেরে বিরতির পর দশম মিনিটে। অসাধারণ ফ্রি-কিকে চেলসি গোলরক্ষক কেপা আরিজাবালাগাকে পরাস্ত করেন বেলজিয়ান মিডফিল্ডার কেভিন ডি ব্রুইন।

৭৭তম মিনিটে ট্যামি আব্রাহামের প্রচেষ্টা গোললাইন থেকে হাত দিয়ে ফিরিয়ে দেন ফার্নানদিনহো। ভিএআরের সাহায্য নিয়ে ম্যান সিটির এই ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডারকে সরাসরি লাল কার্ড দেখানোর পাশাপাশি চেলসির পক্ষে পেনাল্টির সিদ্ধান্ত দেন রেফারি। সফল স্পট-কিকে জালের ঠিকানা খুঁজে নেন উইলিয়ান।

এই জয়ে আগামী মৌসুমের উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে খেলার স্বপ্ন উজ্জ্বল করেছে ব্লুজরা। ৩১ ম্যাচে ৫৪ পয়েন্ট নিয়ে তারা আছে চতুর্থ স্থানে। সমান ম্যাচে তিনে থাকা লেস্টার সিটির পয়েন্ট ৫৫।

৪৯ পয়েন্ট নিয়ে পঞ্চম স্থানে রয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। পয়েন্ট সমান হলেও গোল ব্যবধানে পিছিয়ে থাকায় তালিকার ষষ্ঠ স্থানে উইলভারহ্যাম্পটন ওয়ান্ডারার্স।

Stay updated on the go with The Daily Star Android & iOS News App. Click here to download it for your device.

Grameenphone and Robi:
Type START <space> BR and send SMS it to 2222

Banglalink:
Type START <space> BR and send SMS it to 2225

পাঠকের মন্তব্য

Top