লকডাউন ছুটির দিন নয়, ক্রিকেট খেলবেন না: শচীন | The Daily Star Bangla
১২:৫৫ পূর্বাহ্ন, মার্চ ২৬, ২০২০ / সর্বশেষ সংশোধিত: ০১:০০ পূর্বাহ্ন, মার্চ ২৬, ২০২০

লকডাউন ছুটির দিন নয়, ক্রিকেট খেলবেন না: শচীন

স্পোর্টস ডেস্ক

করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে ভারতজুড়ে চলছে লকডাউন। কিন্তু এই উদ্বেগজনক পরিস্থিতিতেও অনেকে বাইরে ঘুরে বেড়াচ্ছেন, মেতে উঠেছেন ক্রিকেটে। লোকজনের এমন আচরণে ভীষণ চিন্তিত হয়ে পড়েছেন ভারতীয় ক্রিকেট কিংবদন্তি শচিন টেন্ডুলকার। সবাইকে বাড়িতে থাকার অনুরোধ করে তিনি বলেছেন, লকডাউন কোনো ছুটির দিন নয়, তাই বাইরে বেরিয়ে ক্রিকেট খেলা যাবে না।

মঙ্গলবার রাতে ভারতে তিন সপ্তাহের লকডাউন ঘোষণা করেছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। কিন্তু অনেক ভারতীয়ই তা মানছেন না। উদ্দেশ্যহীনভাবে কেউ কেউ ঘোরাঘুরি করছেন বাড়ির বাইরে, কেউ কেউ আবার মাঠে নেমে পড়েছেন ব্যাট-বল নিয়ে। সেসব ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হয়েছে ভাইরাল, এসেছে শচিনের নজরেও। তাই বুধবার ইউটিউবে একটি ভিডিও বার্তা প্রকাশ করেছেন তিনি। সেখানে স্বাস্থ্য বিষয়ক নির্দেশনা মেনে চলার পাশাপাশি সবাইকে ঘরে আবদ্ধ থাকতে আহ্বান করেছেন সাবেক তারকা ব্যাটসম্যান।

‘বিশ্বব্যাপী সরকার ও স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা আমাদের ঘরে থাকতে অনুরোধ করেছেন এবং বলেছেন বাইরে ঘুরে না বেড়াতে। তবুও আমি শুনতে পাচ্ছি যে, মানুষ এটাকে গুরুত্বের সঙ্গে নিচ্ছে না। এমনকি কিছু ভিডিওতে এই সময়েও মানুষকে ক্রিকেট খেলতে দেখেছি।’

‘আমি জানি, আমার মতো সবারই ইচ্ছে করছে বন্ধু-বান্ধবের সঙ্গে দেখা করতে। কিন্তু এই মুহূর্তে এমন কিছু করাটা গোটা জাতির জন্য সত্যিই ক্ষতিকর। এই লকডাউনকে ছুটি ভেবে ভুল করা উচিত নয়। দয়া করে মনে রাখুন, আমরা হলাম অক্সিজেন, আর করোনাভাইরাস আগুন। আরও অনেক জীবন কেড়ে নেওয়া থেকে এই ভাইরাসকে আটকানোর একমাত্র উপায় হলো এর অক্সিজেন সরবরাহ বন্ধ করে দেওয়া। এর অর্থ, বাড়ির বাইরে পা দেওয়া যাবে না।’

‘করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই চালিয়ে যাওয়া সাহসী ডাক্তার, নার্স ও অন্যান্যদের জন্য কমপক্ষে যেটুকু আমরা করতে পারি, সেটা হলো তাদের নির্দেশনা মেনে চলা। আমি ও আমার পরিবার গেল দশ দিনে আমাদের বন্ধুদের সঙ্গে দেখা করিনি। আগামী ২১ দিনও এটাই করতে থাকব। এটাকে পরিবারের সঙ্গে ভালো সময় কাটানোর সুযোগ হিসেবে দেখুন। এই ভাইরাস থেকে নিজেকে বাঁচান, এই সমাজ, আমাদের দেশ ও গোটা বিশ্বকে বাঁচান। ধন্যবাদ।’

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাস ভারতেও ছড়িয়ে পড়তে শুরু করেছে। বুধবার পর্যন্ত, ভারতে কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত হয়েছেন ৬০৬ জন। আর মারা গেছেন ১০ জন।

Stay updated on the go with The Daily Star Android & iOS News App. Click here to download it for your device.

Grameenphone and Robi:
Type START <space> BR and send SMS it to 2222

Banglalink:
Type START <space> BR and send SMS it to 2225

পাঠকের মন্তব্য

Top